আশুলিয়ায় হাত-পায়ের রগ কেটে কিশোরকে হত্যা চেষ্টা

সাভার প্রতিনিধি

সাভারের আশুলিয়ায় রাতে মাদক ব্যবসাকে কেন্দ্র করে জিম (১৩) নামের এক কিশোরের হাত-পায়ের রগ কেটে এলোপাথারী কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা করা হয়েছে।

সোমবার (০৩ জুলাই) দিবাগত রাত ৩টা দিকে আশুলিয়ার চারালপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

ভুক্তভোগী কিশোর জিম ঢাকার ধামরাইয়ের মোঃ জালালের ছেলে। সে বাসের হেলপার ছিলো। এছাড়াও আহত হয়েছেন জিমের সহকর্মী বাসচালক লিটন মিয়া ও আরেক পথচারী।

অভিযুক্তরা হলো- টিপু (২৬), টেক্কা মনির, রাব্বি, সুজন ও বাবু। তারা সবাই আশুলিয়া থানার ছাত্রলীগ সভাপতি প্রার্থী আরিফুল ইসলামের অনুসারী।

ভুক্তভোগী বাসচালক লিটন মিয়া জানান, কিছুদিন আগে জিম ও লিটনসহ আরও কয়েকজন মিলে টিপু, টেক্কা মনির, রাব্বিকে মাদক বিক্রি করতে বাধা দিয়েছিলো। গতকাল রাত ৩ টার দিকে বাস রেখে জিম ও লিটন বাসায় ফেরার পথে রাম দাঁ, চাপাতিসহ দেশিয় অস্ত্র দিয়ে তাদের ধাওয়া করে টিপুবাহিনী। কিন্তু জিম দৌড়ে পালাতে গিয়ে পড়ে গেলে তার হাত ও পায়ের রগ কেটে দেয় তারা। সময় স্থানীরা তাকে উদ্ধার করে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজের হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য পাঠায়।

তিনি বলেন, আমি আর জিম বাস রেখে বাসার দিকে যাচ্ছিলাম। হটাৎ আমাদের উপর ঝাঁপিয়ে পরে তারা। আমার গলায় ছুড়ি দিয়ে আঘাত করেছে আমি অল্পের জন্য বেঁচে গেছি। আর জিম পালাতে গিয়ে পড়ে গেছে তাকে এলোপাতাড়ি ভাবে কুপিয়ে হাত-পায়ের রগ কেটে দিয়েছে৷ জিম আইসিউতে ভর্তি। আমরা থানায় যাচ্ছি বিষয়টি নিয়ে মামলা করতে।

আশুলিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মোহাম্মদ জিয়াউল ইসলাম জানান, ‘এমন কোন ঘটনা আমার জানা নেই। কোনো অভিযোগও এখনো পাইনি। তবে ডিউটি অফিসারের কাছে দিতেও পারে, আমি জানি না। তবে অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
error: Content is protected !!