শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট নির্বাচন
জয়ের পথে গোটাবায়া রাজাপাকসে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বড় ব্যবধানে এগিয়ে আছেন সাবেক প্রেসিডেন্ট মাহিন্দা রাজাপাকসের ভাই গোটাবায়া রাজাপাকসে। তিনি পেয়েছেন ৬৭ শতাংশ ভোট। তার প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী প্রেমাদাসা পেয়েছেন মাত্র ২৪ শতাংশ ভোট।

রোববার সকালে নির্বাচনের প্রাথমিক ফলাফলে এমনটিই দেখা গেছে।

শনিবার দেশটিতে ৮ম বারের মতো প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। নানা প্রকার সহিংসতা ও অভিযোগের মধ্যে ভোট গ্রহণ শেষ করেছে দেশটির প্রশাসন। নির্বাচনে লাখ লাখ শ্রীলঙ্কান তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন।

শনিবার ৭টায় শুরু হয় শ্রীলংকার অষ্টম প্রেসিডেন্ট নির্বাচন। ১ কোটি ৬০ লাখ ভোটারের জন্য ২২টি নির্বাচনী জেলায় খোলা হয় প্রায় ১৩ হাজার ভোট কেন্দ্র। ভোটগ্রহণে ব্যবহার হয়েছে ২৬ ইঞ্চি লম্বা ব্যালট পেপার। দেশটির নির্বাচনী ইতিহাসে এবারই প্রথম এতবড় ব্যালট ব্যবহার করল নির্বাচন কমিশন। আরেক রেকর্ড হল, ক্ষমতাসীন কোনো প্রেসিডেন্ট বা প্রধানমন্ত্রীর কেউই এবার প্রার্থী হননি। বিকাল ৫টায় ভোটগ্রহণ শেষ হওয়া পর্যন্ত ৭৯ শতাংশ ভোট পড়ে।

১০ বছর আগে গোটবায়া রাজাপাকসের ভাই মাহিন্দা রাজাপাকসে শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট ছিলেন। ওই সময় শ্রীলঙ্কার প্রতিরক্ষামন্ত্রী ছিলেন গোটাবায়া। তাদের সময়েই তামিল বিচ্ছিন্নতাবাদীদের সামরিক পরাজয় ঘটার মধ্যে দিয়ে বহু বছর ধরে চলা রক্তাক্ত গৃহযুদ্ধের অবসান হয়।

তামিল বিদ্রোহীদের পরাজিত করায় সমর্থকদের মধ্যে ব্যাপক জনপ্রিয়তা লাভ করেন গোটাবায়া রাজাপাকসে। মহিন্দা রাজাপাকসে ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার পর গোটাবায়া তাদের দল ফ্রিডম পার্টির প্রধান হিসেবে আছেন। নির্বাচনী প্রচারণায় তিনি শক্তিশালী নেতৃত্বের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

প্রাথমিক ফলাফলে দেখা গেছে, রাজাপাকসে সিংহলিদের প্রাধান্য থাকা দক্ষিণাঞ্চলে ও পোস্টাল ভোটে এগিয়ে আছেন।

অপরদিকে তার প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী শ্রীলঙ্কার নিহত সাবেক প্রেসিডেন্ট রানাসিংহে প্রেমদাসার ছেলে ইউনাইটেড ন্যাশনাল পার্টির (ইউএনপি) নেতা সাজিথ তামিল অধ্যুষিত উত্তরাঞ্চলে এগিয়ে আছেন।

রোববার রাতের মধ্যেই নির্বাচনে জয়-পরাজয়ের বিষয়টি পরিষ্কার হয়ে যাবে বলে মনে করছে দেশটির নির্বাচন কমিশন। এরপর নতুন প্রেসিডেন্ট কয়েক দিনের মধ্যেই শপথ গ্রহণ করবেন।

এএস/শিরোনাম বিডি

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
%d bloggers like this: