দ্বিতীয় দিনের মতো শ্রমিক অবরোধের নামে নৈরাজ্য

জনশক্তি রিপোর্ট: কর্মবিরতির শেষ দিনে বেপরোয়া আচরণ চালিয়ে যাচ্ছেন পরিবহন শ্রমিকরা। রাজধানীর রাস্তায় ব্যক্তিগত গাড়ি ও চালকদের পথরোধ করে তারা মবিল মাখিয়ে দিচ্ছেন। এমনকি চালকদের শারীরিকভাবে হেনস্তা করার পাশাপাশি গাড়িতে থাকা যাত্রীদের নামিয়ে দেওয়ার ঘটনাও ঘটছে।

বিশেষ করে রাজধানীর পোস্তগোলা ব্রিজ ও যাত্রাবাড়ী এলাকায় সোমবার (২৯ অক্টোবর) এরকম ঘটনা বেশি চোখে পড়েছে।

ব্যক্তিগত গাড়ির এক চালক নামপ্রকাশ না করার শর্তে বলেন, ‘আমার গাড়িতে অসুস্থ এক রোগী ছিলেন। রোগী নিয়ে খুলনায় যাচ্ছিলাম। কিন্তু পথে শ্রমিকরা আটকায়। আমি তাদের কাছে হাতজোড় করে মাফও চেয়েছি। কিন্তু তারা কথা না শুনে মুখে মবিল মাখিয়ে দিয়েছে।’

একইসঙ্গে গাড়ির গ্লাসেও মবিল মাখিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে জানান ওই চালক।

অপর এক চালক বলেন, ‘আমি মাদারীপুর যাচ্ছিলাম। গাড়িতে অসুস্থ রোগী ছিলেন। কিন্তু পোস্তগোলা ব্রিজ এলাকায় রোগীকে নামিয়ে দিয়েছে শ্রমিকরা। একইসঙ্গে আমাকে ফেরত পাঠিয়েছে।’

চালকদের অভিযোগ, এদিন পোস্তগোলা ব্রিজ এলাকায় দায়িত্ব পালন করছিলেন কেরানীগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক মো. জাবেদ। চালকদের হেনস্তা করার সময় এসআই জাবেদ ঘটনাস্থলের কাছাকাছি অবস্থান করলেও শ্রমিকদের বাধা দেননি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আমি বিষয়টি জানি না। আপনার কাছ থেকেই শুনলাম।’

সড়ক পরিবহন আইনের কয়েকটি ধারা সংশোধন ও সাজা কমানোর দাবিতে দুইদিনের কর্মবিরতির ডাক দেন বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন ফেডারেশন। কর্মবিরতিতে রাজধানী ঢাকা ও আন্তঃজেলায় পরিবহন যোগাযোগ অচল হয়ে পড়েছে।

কর্মবিরতির প্রথম দিনেও নৈরাজ্য করেন পরিবহন শ্রমিকরা। এদিনও গাড়ি বের করার শাস্তি হিসেবে চালকদের মুখে মবিল মাখিয়ে দেওয়া হয়।

জনশক্তি/এস

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
error: Content is protected !!