নদীর পানি বাড়ছে, আতঙ্কে উপকূলবাসী

নিজেস্ব প্রতিবেদক

ধেয়ে আসছে অতি শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’। এর প্রভাবে বাগেরহাটের নদ-নদীর পানি বেড়েছে। সেই সঙ্গে আতঙ্ক বাড়ছে স্থানীয়দের মাঝে।

রাতভর বৃষ্টি ও ঝড়ো হাওয়ার পর বুধবার (২৬ মে) সকালে জোয়ারে নদ-নদীতে স্বাভাবিকের চেয়ে ৫৬ সেন্টিমিটার পানি বেড়েছে।

বাগেরহাটের পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী বিশ্বজিৎ বৈদ‌্য রাইজিংবিডিকে এ তথ‌্য নিশ্চিত করেছেন।

বগী গ্রামের ইউপি সদস্য রিয়াদুল পঞ্চায়েত বলেন, ‘নদ-নদীর পানি বেড়ে ঘরে প্রবেশ করায় আমার গ্রামের প্রায় ২০০ মানুষ আশ্রয়ণকেন্দ্রে আশ্রয় নিয়েছেন। আতঙ্কে রয়েছেন তারা। এখন বলেশ্বর নদীর পানি বাড়ছে, বড় বড় ঢেউ আছড়ে পড়ছে বেড়িবাঁধের ওপর। এর থেকে বেশি পানি হলে অরক্ষিত বেড়িবাঁধের মানুষ খুব বিপদে পড়বে।’

বাগেরহাটের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক খোন্দকার রিজাউল করিম বলেন, ‘দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুয়ায়ী ঘূর্ণিঝড় ইয়াস মোকাবিলায় আমরা সবধরনের প্রস্তুতি গ্রহণ করেছি। ঝুঁকিপূর্ণ উপজেলাগুলোতে শুকনো খাবার মজুত রাখা হয়েছে। আশ্রয়ণকেন্দ্রে যাওয়ার জন্য মাইকিং করা হয়েছে। আশ্রয়কেন্দ্রে স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতেও সংশ্লিষ্টদের বলা হয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘সাধারণ মানুষের জন্য জেলার ৩৪৪টি আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত রাখা হয়েছে। জেলার ৭৫টি ইউনিয়নের প্রত্যেকটিতে ২৫ হাজার টাকা ও ৩টি পৌরসভায় দুই লাখ টাকা করে বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া প্রতিটি উপজেলায় শিশু খাদ্যের জন্য এক লাখ ও গো-খাদ্যের জন্য এক লাখ টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে।’

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
error: Content is protected !!
%d bloggers like this: