বাংলাদেশের পাসপোর্ট সংশোধন ‘অগ্রহণযোগ্য’: ফিলিস্তিনের রাষ্ট্রদূত

শিরোনাম ডেস্ক

বাংলাদেশের নতুন ই-পাসপোর্টে ‘এক্সসেপ্ট ইসরায়েল’ শব্দ দুটি বাদ দেওয়া হয়েছে। এ সংশোধনী ‘অগ্রহণযোগ্য’ বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকায় নিযুক্ত ফিলিস্তিনের রাষ্ট্রদূত ইউসুফ এস ওয়াই রামাদান। তিনি এ সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার জন্য বাংলাদেশের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

সোমবার (২৪ মে) ঢাকায় ফিলিস্তিন দূতাবাসে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এ আহ্বন জানান তিনি।

ফিলিস্তিনের রাষ্ট্রদূত বলেন, ‘বাংলাদেশ সরকার এমন এক সময়ে পাসপোর্টে এ পরিবর্তন এনেছে, যখন কয়েকদিন আগে গাজায় ইসরায়েল হামলা ও নৃশংসতা চালিয়েছে। সে কারণে এই পরিবর্তন একটি ভুল বার্তা দেবে।’

তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ ইস্যুর ব্যাখ্যা দিয়েছেন। তিনি বাংলাদেশের অবস্থান স্পষ্ট করেছেন। বাংলাদেশ স্বাধীন ও সার্বভৌম দেশ। সে হিসেবে বাংলাদেশে যেকোনো সিদ্ধান্ত স্বাধীনভাবে নিতে পারে। তবে, আমরা এ সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার অনুরোধ করব।’

বাংলাদেশের পাসপোর্টে এতদিন ধরে লেখা থাকতো ‘দিস পাসপোর্ট ইজ ভ্যালিড ফর অল কান্ট্রিজ অব দ্য ওয়ার্ল্ড একসেপ্ট ইসরায়েল’। তবে নতুন ই-পাসপোর্টে সংশোধন করে লেখা হচ্ছে ‘দিস পাসপোর্ট ইজ ভ্যালিড ফর অল কান্ট্রিজ অব দ্য ওয়ার্ল্ড’। এখানে ‘একসেপ্ট ইসরায়েল’ শব্দ দুটি বাদ দেওয়া হয়েছে। এর মানে হলো, বাংলাদেশের পাসপোর্ট এখন ইসরায়েলসহ বিশ্বের সব দেশের ক্ষেত্রেই বৈধ।

তবে, বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, পাসপোর্টে ‘একসেপ্ট ইসরায়েল’ লেখা বাদ দিলেও ইসরায়েলে বাংলাদেশি নাগরিকদের ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বহাল থাকবে। এছাড়া, ইসরায়েল ও মধ্যপ্রাচ্য বিষয়ে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রনীতি আগের মতোই আছে।

কেআরআর

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
error: Content is protected !!
%d bloggers like this: