‘ময়না তদন্ত’ শব্দের উৎপত্তি

শিরোনাম ডেস্ক

ইংরেজী ‌‌‍‘পোস্ট মর্টেম’ শব্দের বাংলা অর্থ ‘ময়না তদন্ত’। তবে কখনও ভেবে দেখেছেন পোস্ট মর্টেমের বাংলা অর্থ ময়না তদন্ত কেন?

পোস্ট মর্টেম অন্ধকার থেকে একটি অজানা কারণকে উদঘাটন করে আলোতে নিয়ে আসে। কিন্তু পোস্ট মর্টেম কে ময়না তদন্ত বলা হয় কেন? তাহলে পোস্ট মর্টেমের সঙ্গে ময়না পাখির মিল কোথায়? এ নিয়ে কেউ মাথাও ঘামায় না, তবে রহস্য উদঘাটনের আকাঙ্ক্ষা থাকা উচিত।

বিষয়টা সকলের কাছে সমান গুরুত্ববহ নয় বটে। চলুন জেনে নেওয়া যাক কেন এই নামকরণ।

প্রায় তিন থেকে ১৩ রকমভাবে ডাকতে পারা ময়না পাখি দেখতে অনেকটা মিশমিশে কালো। ঠোঁট হলুদ বর্ণের। খালি চোখে অন্ধকারে ময়না পাখিকে প্রায় দেখতে পাওয়া যায় না। কারণ এরা নিজের কালো বর্ণকে অন্ধকারের মধ্যে লুকিয়ে রাখে। একজন অভিজ্ঞ ব্যক্তিই ময়না পাখির ডাক শুনে বলতে পারেন পাখিটি ময়না। অন্ধকারে থাকা ময়নার কণ্ঠস্বর শুনে যেমন ময়নাকে আবিষ্কার করা হয়, ঠিক তেমনই পোস্ট মর্টেমের ক্ষেত্রেও অন্ধকারে থাকা অজানা কারণকে সামান্য সূত্র দিয়েই আবিষ্কার করা যায়।

এই সামান্য সূত্র থেকেই বড় বড় রহস্যের সমাধান পাওয়া যায়। খুঁজে পাওয়া যায় সাথে সাথে মৃত্যুর কারণ ও প্রকৃত অপরাধীকে। এই জন্যই পোস্ট মর্টেমের বাংলা নাম হয়েছে– ময়না তদন্ত।

আইআই/শিরোনাম বিডি

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
error: Content is protected !!
%d bloggers like this: