রমজানে পণ্যের দাম সহনীয় পর্যায়ে থাকবে : প্রধানমন্ত্রী

নিজেস্ব প্রতিবেক

সরকারের গ্রহণ করা বিভিন্ন কার্যক্রমের ফলে বাজারে দ্রব্যমূল্য সহনীয় পর্যায়ে রয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, রমজান মাসেও নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য সহনীয় পর্যায়ে থাকবে।

 

বুধবার (৩০ মার্চ) দুপুরে একাদশ জাতীয় সংসদের ২৭তম অধিবেশনে তিনি এ কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, খাদ্যশস্যের বাজার দরের ঊর্ধ্বগতি রোধের লক্ষ্যে চালকল পর্যায়ে ধান মজুতের সর্বোচ্চ পরিমাণ দৈনিক আট ঘণ্টা হিসেবে পাক্ষিক ছাঁটাই ক্ষমতা পাঁচ গুণের স্থলে তিন গুণে হ্রাস করা হয়েছে। পাইকারি বাজারগুলোতে মজুতদারি এবং বিভিন্ন রাইস মিলে অতিরিক্ত চাল মজুতের মাধ্যমে কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করে যাতে খাদ্যশস্যের মূল্যবৃদ্ধি করতে না পারে সে লক্ষ্যে কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হচ্ছে।

‘সেইসঙ্গে ১০০টি বৃহৎ আকারের চালকলের মিলগেটের মূল্য নিয়মিত সংগ্রহ করে ভোক্তা অধিকার কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে অভিযান এবং কেউ অবৈধ মজুতের মাধ্যমে বাজারে যাতে কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করতে না পারে সে লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় প্রশাসনের সহায়তায় মেবাইল কোর্ট পরিচালনা করা হচ্ছে। ১০ টাকা দরে চাল বিক্রির খাদ্যবান্ধব কর্মসূচিতে কর্মাভাবকালীন পাঁচ মাস (সেপ্টেম্বর-নভেম্বর  মার্চ-এপ্রিল) সারা দেশে গ্রামাঞ্চলে ৫০ লাখ অতিদরিদ্র পরিবারের মধ্যে মাসে ৩০ কেজি করে চাল বিক্রি কার্যক্রম চালু রয়েছে।’
তিনি বলেন, ওএমএস কর্মসূচি আওতায় বিক্রয় কেন্দ্রের সংখ্যায় প্রায় তিন গুণ বৃদ্ধি করে বর্তমানে দুই হাজার ১৩টি কেন্দ্রে ওএমএস খাদ্যশস্য বিক্রয় কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে। ওএমএস কর্মসূচি মহানগর ও জেলা পর্যায়ের পৌরসভাগুলোতে পরিচালনা করা হলেও বর্তমানে তা সম্প্রসারিত করে সব পৌরসভায় পরিচালনা করা হচ্ছে। সরকার এসব কার্যক্রম গ্রহণের ফলে বাজারে দ্রব্যমূল্য সহনীয় পর্যায়ে রয়েছে এবং আশা করি, আসন্ন পবিত্র রমজান মাসেও নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য সহনীয় পর্যায়ে থাকবে।

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
error: Content is protected !!