‘সরকারের কাছে সার্বভৌমত্বের কোনো গুরুত্ব নেই’

জনশক্তি রিপোর্ট: বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, ‘বিজেপির নেতা ও রাজ্যসভার সদস্য সুব্রামানিয়াম স্বামী বাংলাদেশে সংখ্যালঘু হিন্দু সম্প্রদায়ের ওপর ধারাবাহিক নির্যাতন বন্ধ না হলে এ দেশ দখলের হুমকি দেওয়ার খবর প্রচারিত হলেও সরকার এ ব্যাপারে কোনো প্রতিক্রিয়া জানায়নি।’

‘এটা শুধু আওয়ামী লীগ সরকারের নতজানু পররাষ্ট্রনীতির পরিচায়ক নয়, এটি সার্বভৌম বাংলাদেশের মর্যাদা ও স্বতন্ত্র রক্ষায় সরকারের সীমাহীন ব্যর্থতার নগ্ন প্রকাশ বলে দেশবাসী মনে করে,’ যোগ করেন বিএনপির এই নেতা।

আজ রোববার নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে রিজভী এসব কথা বলেন।

রিজভী অভিযোগ করে ব‌লেন, ‘বাংলাদেশকে দখল করে নেওয়ার মতো দেশের স্বাধীন অস্তিত্ব ও সার্বভৌমত্ববিরোধী মারাত্মক হুমকিকে আমলে না নিয়ে দেশের চেয়ে নিজেদের স্বার্থকে অধিক গুরুত্ব দিয়েছে। যার ফলে পুনরায় প্রমাণিত হলো যে, বর্তমান সরকার দেশের জনগণের প্রতিনিধিত্ব করে না। সরকারের কাছে ক্ষমতাই সবকিছু, দেশের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব কিংবা মর্যাদার কোনো গুরুত্ব নেই।’

সংবাদ স‌ম্মেল‌নে বিএনপির এই নেতা ব‌লেন, ‘বিএনপি সব নাগরিকের সংবিধানস্বীকৃত সমান অধিকারে বিশ্বাসী। এখানে ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সবার স্ব-স্ব ধর্ম পালনের অধিকারের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। একটি গণতান্ত্রিক দল হিসেবে সুব্রামানিয়াম স্বামীর অভিযোগের যথার্থতা থাকলে সে বিষয়ে কার্যকর প্রতিকারের ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি।’

‘পাশাপাশি বাংলাদেশের স্বাধীন সত্তা ও সার্বভৌমত্বের বিরুদ্ধে প্রকাশ্য হুমকিকে অপ্রত্যাশিত, অকূটনীতিক এবং আগ্রাসী বলে তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করে অবিলম্বে এ বক্তব্য প্রত্যাহারের জোর দাবি জানাচ্ছি।’

সংবাদ স‌ম্মেল‌নে আরো উপস্থিত ছি‌লেন বিএন‌পির ভাইস চেয়ারম্যান ডা. এ জেড এম জা‌হিদ হো‌সেন, চেয়ারপারসনের উপ‌দেষ্টা আতাউর রহমান ঢালী প্রমুখ।

জনশক্তি/এস

সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
error: Content is protected !!