সাভারে জাপা নেতার বাড়িতে ‘লুট’

উপজেলা প্রতিবেদক

ঢাকার সাভারে জাতীয় পার্টির এক কেন্দ্রীয় নেতা ও তার স্ত্রী ঘুমিয়ে থাকা অবস্থায় স্বর্ণালংকারসহ নগদ টাকা লুটের ঘটনা ঘটেছে। ভুক্তভোগীদের অভিযোগ, ৪০ ভরি স্বর্ণ ও ৩ লাখ টাকা লুট করা হলেও কেউ আহত হয়নি।

বুধবার ভোরে আশুলিয়ার ধলপুর এলাকায় জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় নেতার বাড়িতে এই ঘটনা ঘটে।

ভুক্তভোগী আবুল কালাম আজাদ জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও সাভার উপজেলা সভাপতি। তার বড় ছেলে আবুল হাসনাত আজাদ একই দলের কেন্দ্রী কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক।

আবুল কালাম আজাদ বলেন, আমার টিনশেডের আধাপাকা বাড়ির পাঁচটি ঘর। একটিতে আমি ও আমার স্ত্রী থাকি। বাকী ঘর গুলো খালিই থাকে। তবে তিন ছেলে ও আমার স্ত্রী তাদের জিনিসপত্র বাকী ঘর গুলোতে রাখে। ভোর রাতে কে বা কারা কিভাবে সব গুলো ঘরেই ঢোকে। আমার ঘরের আলমারি খুলে তিন ছেলে ও আমার স্ত্রীর প্রায় ৪০ ভরি গয়নাসহ নগদ টাকা নিয়ে যায়।

জাতীয় পার্টির নেতার স্ত্রী আলহাজ্ব মনোয়ারা আজাদ বলেন, আমার ঘরের দুইটা আলমারির চাবি পাশের ঘরের ট্রাঙ্কে ছিলো। ওই ট্রাঙ্কটা খুলে চাবি নিয়ে পরে আলমারি খুলে সব নিয়া গেছে। বাসা ভাড়ার ৩ লাখ টাকা ছিলো। আর আমার ও তিন ছেলে বউয়ের গয়নাগাটিও ওই আলমারিতেই ছিলো।

জাতীয় পার্টির নেতার ছেলে জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবুল হাসনাত আজাদ বলেন, আব্বা-আম্মার ঘরে দুর্বৃত্তরা কিভাবে প্রবেশ করেছে সেটা আমরা কেউই বলতে পারি না। আমরা তিন ভাই পাশেই টিনশেডের আলাদা বাসায় থাকি। তবে ভোরে মায়ের কান্নাকাটির আওয়াজ শুনে আমাদের ঘুম ভাঙলে এসে এই ঘটনা জানি। তখন বারান্দার কলাপিসবল গেট ভেতর থেকেই তালাবদ্ধ ছিলো। তবে ওই বাসায় ঢোকার আরেকটি পকেট দরজা বাইরে থেকে ছিটকিনি লাগানো অবস্থায় পেয়েছি। সম্ভবত দুবৃত্তরা রাতে কোন এক সময় আগে থেকেই ঘরে প্রবেশ করে লুকিয়ে ছিলো। অথবা আম্মা-আব্বা রাতে পকেট দরজাটা ভুলে বন্ধ না করেই ঘুমিয়ে গেছিলেন।

  • আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মিলন ফকির বলেন, জাতীয় পার্টির ওই নেতার বাড়িতে চুরির ঘটনা ঘটেছে। তাদের ভাষ্য অনুযায়ী ৪০ ভরি স্বর্ণ ও ৩ লাখ টাকা হারিয়েছে। তবে ঘটনাটি রহস্যজনক। কারণ বারান্দার কলাপসিবল গেট ভেতর থেকেই আটকানো ছিলো। শুধু অন্যপাশের একটা দরজা বাইরে থেকে আটকানো অবস্থায় পেয়েছি। প্রাথমিক তদন্তে এটা চুরিই মনে হচ্ছে। তবে আমরা তদন্ত করে আসল ঘটনা জানার চেষ্টা করছি।
সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
error: Content is protected !!